1. admin@idealmediabd.com : Sultan Mahmud : Sultan Mahmud
ট্রাম্প সহিংসতা উসকে দিচ্ছেন, দায় তাকেই নিতে হবে: নির্বাচনী কর্মকর্তা - ইত্তেহাদ টাইমস
মঙ্গলবার, ২৬ জানুয়ারী ২০২১, ০৫:১৫ পূর্বাহ্ন

ট্রাম্প সহিংসতা উসকে দিচ্ছেন, দায় তাকেই নিতে হবে: নির্বাচনী কর্মকর্তা

ইত্তেহাদ টাইমস
  • প্রকাশটাইম: বুধবার, ২ ডিসেম্বর, ২০২০

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে সংঘাত উসকে দেয়ার অভিযোগ করেছেন তারই দলের একজন নির্বাচনী কর্মকর্তা, তিনি সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন, এর ফলে যুক্তরাষ্ট্রে কোনো সংঘাত বেধে গেলে দায় ডোনাল্ড ট্রাম্পকেই নিতে হবে। খবর বিবিসির।

জর্জিয়া অঙ্গরাজ্যের ওই নির্বাচনী কর্মকর্তার নাম গ্যাব্রিয়েল স্টার্লিং। জর্জিয়ার সেক্রেটারি অব স্টেটের ভোট ব্যবস্থাপনার ব্যবস্থাপক তিনি।

মঙ্গলবার আটলান্টায় সংবাদ সম্মেলনে গ্যাব্রিয়েল বলেন, নির্বাচনে ভোট কারচুপি নিয়ে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প যে প্রমাণহীন অভিযোগ করছেন, তার জেরে কোনো সহিংসতা হলে তার দায় তাকেই নিতে হবে।

তিনি বলেন, নির্বাচনের পর অনেক হয়েছে। এবার থামতে হবে।

ট্রাম্প শিবিরের অনুরোধে জর্জিয়ায় দ্বিতীয় দফায় ভোট পুনর্গণনা করা হচ্ছে।

জর্জিয়া অঙ্গরাজ্যে ডেমোক্র্যাট প্রার্থী জো বাইডেন ট্রাম্পের চেয়ে এগিয়ে আছেন। বেসরকারিভাবে তাকে জয়ী ঘোষণা করা হয়েছে। তবে এই রাজ্যে দুজনের ভোটের ব্যবধান খুবই কম।

ট্রাম্পের প্রচার শিবিরের মুখপাত্র টিম মুর্তোফ বলেছেন, সব বৈধ ভোট গণনা করা ও অবৈধ ভোট বাদ দেয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করতে তারা কাজ করছেন।

জর্জিয়ার নির্বাচনী কর্মকর্তা গ্যাব্রিয়েল জানান, অঙ্গরাজ্যের ২০ বছর বয়সী এক ঠিকাদার হত্যার হুমকি পেয়েছেন। তার পরিবার হয়রানির শিকার হচ্ছে।

এমনকি নিজের বাড়ির বাইরে পুলিশি পাহারা রয়েছে বলে জানান গ্যাব্রিয়েল। তিনি বলেন, জর্জিয়ার সেক্রেটারি অব স্টেটের স্ত্রী ফোনে নিপীড়নের হুমকি পাচ্ছেন।

গ্যাব্রিয়েল বলেন, ‘মিস্টার প্রেসিডেন্ট, এ ঘটনাগুলো বা ভাষার ব্যাপারে আপনি নিন্দা জানাননি। রিপাবলিকানরাও নিন্দা জানায়নি।

এদিকে ৩ নভেম্বরের নির্বাচন নিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প যেসব অভিযোগ করে আসছেন, তাতে দ্বিমত পোষণ করেছেন দেশটির অ্যাটর্নি জেনারেল উইলিয়াম বার। ডোনাল্ড ট্রাম্পের সময়ে নিয়োগ পাওয়া রাষ্ট্রের প্রধান এই আইন কর্মকর্তা বলেন, প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ভোট জালিয়াতির যেসব অভিযোগ তুলেছেন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প, তার সপক্ষে কোনো প্রমাণ খুঁজে পাওয়া যায়নি। ভোটের ফল পাল্টে দেয়ার মতো অনিয়ম হয়নি বলে তার মত।

ট্রাম্পের অভিযোগ নিয়ে ট্রাম্প ঘনিষ্ঠ হিসেবে পরিচিত মার্কিন অ্যাটর্নি জেনারেল আরও বলেন, এখন পর্যন্ত আমরা এমন জালিয়াতির প্রমাণ দেখতে পাইনি, যা নির্বাচনের ফল পাল্টে দিতে পারে। পরাজয় স্বীকার না করা ডোনাল্ড ট্রাম্পের জন্য তার এই অবস্থানকে বড় ধাক্কা বলে মনে করা হচ্ছে। তবে উইলিয়াম বারের এই বক্তব্যের কড়া সমালোচনা করেছে ট্রাম্প শিবির।

যুক্তরাষ্ট্রের নির্ভরযোগ্য বার্তা সংস্থা অ্যাসোসিয়েটেড প্রেসকে (এপি) দেয়া একটি সাক্ষাৎকারে উইলিয়াম বার বলেন, বিচার বিভাগ এবং হোমল্যান্ড সিকিউরিটি বিভাগ রিপাবলিকান শিবিরের ভোট কারচুপির অভিযোগ তদন্ত করে এখন পর্যন্ত এর সপক্ষে কোনো প্রমাণ খুঁজে পায়নি।

‘যুক্তরাষ্ট্রের বিচার বিভাগকে সব কিছু সমাধানের একটি মাধ্যম হিসাবে ব্যবহারের প্রবণতা রয়েছে। কেউ যদি কিছু পছন্দ না করে, তখন তারা চায় যে, বিচার বিভাগ এসে সেটির তদন্ত করতে শুরু করুক।’

৩ নভেম্বরের ভোটে ডেমোক্র্যাট পার্টির প্রার্থী জো বাইডেন পেয়েছেন ৩০৬ ইলেকটোরাল কলেজ ভোট। রিপাবলিকান ডোনাল্ড ট্রাম্প পেয়েছেন ২৩২টি। ট্রাম্পের চেয়ে ৬২ লাখ পপুলার ভোট বেশি বাইডেনের। এ নির্বাচন এখনও মেনে নেননি ডোনাল্ড ট্রাম্প। তিনি একের পর এক হুমকি দিয়ে আসছেন।

 

 

Ad/8

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
copyright 2020: ittehadtimes24.com
Theme Customized BY MD Maruf Zakir